1. smsitservice007gmail.com : admin :
তানোরে এসএসসি'র ফরম পুরুণে অতিরিক্ত টাকা আদায় - সতেজ বার্তা ২৪
শুক্রবার, ১২ জুলাই ২০২৪, ১১:৫৯ অপরাহ্ন
শুক্রবার, ১২ জুলাই ২০২৪, ১১:৫৯ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
সিরাজগঞ্জে সাংবাদিকদের ওপর হামলা দেবোত্তর সম্পত্তি আত্মসাৎ ও শিব লিঙ্গ বিক্রির অভিযোগ ছাত্রলীগের সভাপতি আতিকের ডিগবাজি না’কি বিদ্রোহ? সাভারে মাদকের সয়লব , এক নজরে মাদক গ্যাং রাজশাহী আওয়ামী  প্রকাশ্যে বিভক্তির আভাস দায়ী কে ? তানোরে ৩টি পাকা রাস্তা নির্মাণ কাজের উদ্বোধন ভোলার লালমোহন উপজেলার ৭নং পশ্চিম চর উমেদ ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী তরুন মেধাবী যুবনেতা সাইফুল ইসলাম শাকিল তানোরে প্রবেশপত্র আটকে অর্থ আদায়ের অভিযোগ নারায়ণগঞ্জ চাষাড়ায় ফিল্ম স্টাইলে কুপিয়ে দানিয়াল নামের এক যুবককে হত্যা করলো দুর্বৃত্তরা..! তানোরে দোকানের সামনে অবৈধ স্থাপনা নির্মাণ করে প্রতিবন্ধকতা

তানোরে এসএসসি’র ফরম পুরুণে অতিরিক্ত টাকা আদায়

আলিফ হোসেন,তানোরঃ
  • প্রকাশের সময় : বুধবার, ৮ নভেম্বর, ২০২৩
  • ২৩২ বার পঠিত

রাজশাহীর তানোরে চলতি শিক্ষাবর্ষে এসএসসি পরীক্ষার ফরম পুরুণে শিক্ষা বোর্ড নির্ধারিত ফি থেকে অতিরিক্ত টাকা আদায়ের অভিযোগ উঠেছে। এমনকি স্কুলের টেষ্ট পরীক্ষায় অকৃতকার্য শিক্ষার্থীদের কাছে থেকে অতিরিক্ত এক হাজার টাকা করে নেয়া হচ্ছে
জানা গেছে, গত ৩০ অক্টোবর থেকে এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফরম পুরন শুরু হয়েছে। ফরম পুরনের জন্য বোর্ড নির্ধারিত ফি বিজ্ঞান বিভাগে ২ হাজার ১৪০ টাকা এবং মানবিক ও বাণিজ্যে বিভাগের জন্য ২ হাজার ২০ টাকা। কিন্তু অধিকাংশ স্কুলে বোর্ড নির্ধারিত ফি দিয়ে ফরম পুরুণ করানো হচ্ছে না। বিজ্ঞান বিভাগে ২ হাজার ৫০০ এবং মানবিক ও বানিজ্যে বিভাগে ২ হাজার ৪০০ টাকা করে নেয়া হচ্ছে বলে একাধিক সুত্র নিশ্চিত করেছে। এদিকে
উপজেলার সরনজাই, মোহর, নারায়নপুর, বহরইল ও লালপুর স্কুলের একাধিক শিক্ষার্থী জানান, বিজ্ঞান বিভাগে ২ হাজার ৫০০ টাকা এবং মানবিক ও বাণিজ্য বিভাগে ২ হাজার ৪০০  টাকা করে আদায় করা হচ্ছে।আবার যারা টেস্ট পরীক্ষায় ফেল করেছে তাদের কাছে থেকে অতিরিক্ত ৮শ’ থেকে এক হাজার টাকা পর্যন্ত আদায় করা হচ্ছে।
অভিভাবকগণ প্রচন্ড ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন,  বোর্ড নির্ধারিত ফি দিয়ে কোন প্রতিষ্ঠান ফরম পুরুন করেনি। সারা বছর স্কুলে পড়েও টেস্ট পরীক্ষায় অনেকে ফেল করেছে। তাদের কাছে ৮শ’ থেকে এক হাজার টাকা করে আদায় করা হয়েছে। শিক্ষকেরা তো শিক্ষা নিয়ে জম্পেশ বাণিজ্য শুরু করেছে। সারা বছর স্কুল ও কোচিং সেন্টারে পড়ে টেষ্ট পরীক্ষায় ফেল করবে কেনো। আবার ফেল করলে এসএসসি’র ফরম পুরুণ করতে দিবেন না। তা না করে টাকার বিনিময়ে ফরম পুরুণ করতে দেয়াও তো একটা অপরাধ। একাধিক অভিভাবক বলেন, তারা যাবেন কোথায় ? প্রাইভেট কোচিংয়ে না পড়ালে হয় না।এছাড়াও ফরম পুরুণের পর বাকি তিনমাস স্কুলে প্রিপারেশন ক্লাসের জন্য গুনতে হচ্ছে বাড়তি টাকা। লালপুর স্কুলের কয়েকজন শিক্ষার্থী  বলেন, তাদের স্কুলে বিজ্ঞান বিভাগে ২ হাজার ৫০০ টাকা ও মানবিক বিভাগে ২ হাজার ৪০০ টাকা করে নিয়েছেন। সরনজাই স্কুলের প্রধান শিক্ষক আব্দুল হান্নান বলেন, বোর্ড নির্ধারিত ফি নিয়ে ফরম পুরন করা হয়েছে। বেশী টাকা নেয়ার কথা যে বলেছে তাকে ধরে নিয়ে আসতে হবে, যত খুশি লিখ পত্রিকায় আমার কিছুই হবে না। টেস্ট পরীক্ষায় যারা ফেল করেছিল তাদের কাছে ৮শ’ থেকে হাজার টাকা নিয়ে ফরম পুরুণ করানো হচ্ছে প্রশ্ন করা হলে তিনি উত্তরে  বলেন, তিনি এসব বলতে বাধ্য না।
লালপুর স্কুলের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক শরিফুল ইসলাম বলেন, বোর্ড নির্ধারিত ফির চেয়ে একটি টাকাও বেশি নেয়া হয়নি। আপনার শিক্ষার্থীরা বলেছে ২৪০০-২৫০০ টাকা নেয়া হয়েছে এবং টেস্ট পরীক্ষায় যারা ফেল করেছে তাদেরকে বিষয় প্রতি ৮০০-১০০০ টাকা করে নিয়েছেন প্রশ্ন করা হলে তিনি কোনো সদোউত্তর দেননি। মোহর স্কুলের প্রধান শিক্ষক রমজান আলী সামান্য পরিমান অতিরিক্ত টাকা নেয়ার কথা শিকার করে বলেন টেস্ট পরীক্ষায় যারা ফেল করেছে ম্যানেজিং কমিটির সিদ্ধান্ত মোতাবেক তাদের কাছ ৮০০ টাকা করে নেয়া হয়েছে। তবে তারা এসএসসি পরীক্ষার আগে পুনরায় টেস্ট পরীক্ষা দিয়ে পাশ করলে এসএসসি পরীক্ষা দিতে পারবে  তা না হলে তাদের টাকা ফেরত দেয়া হবে।এবিষয়ে উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা  সিদ্দিকুর রহমান বলেন, বোর্ড নির্ধারিত ফি’র চেয়ে অতিরিক্ত টাকা আদায়ের কোন সুযোগ নেই। কোন প্রতিষ্ঠান অতিরিক্ত টাকা নিলে তদন্ত সাপেক্ষে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা
হবে।
এ জাতীয় আরও খবর
Translate »